‘সংসদে সংখ্যালঘুদের জন্য ৬০টি সংরক্ষিত আসন দাবি’

প্রেসটাইম২৪: বাংলাদেশ হিন্দু বৌদ্ধ খ্রিষ্টান ঐক্য পরিষদের সভাপতি এবং আন্তর্জাতিক অপরাধ ট্রাইব্যুনালের প্রসিকিউটর অ্যাডভোকেট রানা দাস গুপ্ত বলেছেন, এদেশের আড়াই কোটি সংখ্যালঘু জনগোষ্ঠীর জন্য জাতীয় সংসদে অন্তত ৬০টি সংরক্ষিত আসনের ব্যবস্থা থাকতে হবে।

তিনি বলেন, ভোট আসলেই সংখ্যালঘু সম্প্রদায়কে ভীতসন্ত্রস্ত থাকতে হয়। নির্বাচন আওয়ামী লীগ বনাম বিএনপি কিংবা আওয়ামী লীগ বনাম তাদেরই বিদ্রোহী যেভাবেই হোক না কেন, টার্গেটে পরিণত হয় সংখ্যালঘুরা। অথচ দেশের ১৬১টি আসনেই সংখ্যালঘু সম্প্রদায়ের ভোট যে কোনো দলের বিজয়ের জন্য নিয়ামক হিসেবে প্রমাণিত।

তিনি সংখ্যালঘুদের নিরাপত্তা ও অধিকার নিশ্চিত করতে সকলকে এগিয়ে আসার আহবান জানান।

বুধবার রাতে ব্রহ্মণবাড়িয়া জেলার আশুগঞ্জ উপজেলার লালপুরে সপ্তাহব্যাপী শ্রী শ্রী ঠাকুর রামচন্দ্র দেবের (রাম ঠাকুর) হিন্দু ধর্মীয় মহোৎসবের উদ্বোধনী বক্তৃতায় তিনি এসব কথা বলেন।

উৎসবের প্রধান উদ্যোক্তা সুহাস দাস চৌধুরীর সভাপতিত্বে উৎসবে প্রধান অতিথি ছিলেন, ব্রাহ্মণবাড়িয়া-৩ আসনের সংসদ সদস্য র আ ম উবায়দুল মোক্তাদির চৌধুরী। বিশেষ অতিথি ছিলেন, হিন্দু বৌদ্ধ খ্রিষ্টান ঐক্য পরিষদের প্রেসিডিয়াম সদস্য অ্যাডভোকেট সুব্রত চৌধুরী ও জয়ন্তী রায়, ঢাকা সবুজবাগ থানা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক লায়ন চিত্ত রঞ্জন দাস, আশুগঞ্জ উপজেলা আওয়ামী লীগের যুগ্ম আহবায়ক আবু নাসের আহমেদ, লালপুর ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান মো: আবুল খায়ের এবং সাবেক চেয়ারম্যান মোরশেদ মাস্টার প্রমুখ।

উৎসবের উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে বিশিষ্ট শিল্পপতি শ্যামল দাসকে (সিআইপি) সংবর্ধনা দেয়া হয়।

ধর্মীয় আলোচনা সভা শেষে মনোজ্ঞ সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠানে সংগীত পরিবেশন করেন বেতার ও টেলিভিশনের বিশিষ্ট শিল্পীবৃন্দ।

উৎসবে বিভিন্ন দিবসে শ্রীমত ভগবত গীতা পাঠ ও ধর্মীয় আলোচনা সভা এবং হরিনাম সংকীর্তন অনুষ্ঠিত হবে।