২৩ ডিসেম্বর নির্বাচন

প্রধান নির্বাচন কমিশনার জাতীর উদ্দেশ্যে ভাষণ এর মাধ্যমে আগামী ২৩ ডিসেম্বর একাদশ জাতীয় নির্বাচনের ইসতেহার ঘোষণা করেন। মনোনয়নপত্র দাখিলের শেষ তারিখ ১৯ নভেম্বর, মনোনয়নপত্র বাছাইয়ের তারিখ ২২ নভেম্বর, প্রার্থীতা প্রত্যাহারের শেষ তারিখ ২৯ নভেম্বর এর ঘোষণা দেন।

ইসি আরো বলেন,  নির্বাচন পরিচালনার জন্য বিভিন্ন পর্যায়ের প্রায় ৭ লক্ষ কর্মকর্তা নিয়োগের প্রাথমিক প্রক্রিয়া সম্পন্ন হয়েছে। প্রত্যেক নির্বাচনি এলাকায় নির্বাহী এবং বিচারিক ‌‌ম্যাজিস্ট্রেট নিয়োগ দেয়া হবে।  পুলিশ, বিজিবি, র্যাব, কোস্ট গার্ড, আনসার ও গ্রাম প্রতিরক্ষা বাহিনীর সদস্য থেকে ৬ লক্ষাধিক সদস্য মোতায়েন  থাকবে।  প্রার্থী এবং তার সমর্থক নির্বাচনি আইন ও আচরণ বিধি মেনে চলার আহ্বান।  প্রতিযোগীতা এবং প্রতিদ্বন্দ্বিতা যেন কখনও প্রতিহিংসা  বা সহিংসতায় প্ররিণত না হয় সেজন্য রাজনৈতিক দলগুলোকে সেদিকে সতর্ক দৃষ্টি রাখার অনুরোধ। ভোটার,  রাজনৈতিক নেতাকর্মী, প্রার্থী, প্রার্থীর সমর্থক এবং এজেন্টরা যাতে বিনা কারণে হয়রানির শিকার না হন সেজন্য আইন শৃংখলা রক্ষাকারী বাহিনীর উপর কঠোর নির্দেশনা রাখার আশ্বাস। শহরের নিদৃষ্ট কিছু কেন্দ্রে ইভিএম ব্যবহার করা হবে।  রাজনৈতিক দলগুলোর মধ্যে মতবিরোধ থাকলে আলোচনা করে মীমাংসা করার আহ্বান। নির্বাচনী প্রচার প্রচারণায় সব প্রার্থীর জন্য সমান সুযোগ থাকবে।

পূর্ণাঙ্গ ভাষণটি লিখিত আকারে পেতে

https://youtu.be/DOGKHlH-tcw

পিডিএফ দেখতে লিংকে ক্লিক করুন

https://www.scribd.com/document/392677204/Final-Sch-2018